মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২০, ১২:০৯ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
একুশে বই মেলা ২০২০ সালে ডা.এম এ মাজেদের স্বাস্থ্য বিষয়ক বই হোমিওসমাধান প্রকাশিত হয়েছে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুপক্ষের গোলাগুলিতে সাবেক কাউন্সিলর নিহত চীনের উহানের উচাং হাসপাতালের প্রধান ডা. লিউ ঝিমিং মারা গেছেন দুর্নীতি করতে দেব না, দুর্নীতি করব না এটাই হোক ছাত্রলীগের স্লোগান-মাশরাফি চাঁপাইনবাবগঞ্জ শিবগঞ্জে মোটরসাইকেল মুখোমুখী সংঘর্ষে আহত ৪ পরিকল্পনামন্ত্রীর কচুরিপানা খাওয়া বিষয়ে অধ্যাপক ড. আসিফ নজরুলের সমালোচনা তসলিমা নাসরিনের বোরখা নিয়ে মন্তব্যের কড়া জবাব দিলেন এআর রাহমানের মেয়ে খাতিজা জনপ্রিয় অভিনেতা তাপস পাল আর নেই আজ বাংলাদেশের চলচ্চিত্রের অন্যতম মহাতারকা মান্নার ১২তম মৃত্যুবার্ষিকী গুজরাটে একদল ছাত্রীকে ঋতুস্রাব চলছে না তা প্রমাণ করতে বাধ্য করার অভিযোগ

মহাসড়ক অবরোধের সময় শ্রমিক-ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষে নিহত ১

worksfare LTD
  • Update Time : ২৭ জানুয়ারী, ২০২০
  • ২৭ Time View

মাটির নিচ থেকে পাথর উত্তোলন করার অনুমতি দেয়ার দাবিতে পঞ্চগড়ে মহাসড়ক অবরোধের সময় শ্রমিক-ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ হয়েছে। এসময় গুলিতে জুমার উদ্দিন (৫৮) নামের এক পাথর শ্রমিক নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় ৮ পুলিশ সদস্যসহ অর্ধশতাধিক শ্রমিক আহত হয়েছেন।

আহত শ্রমিকদের মধ্যে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ৩ জনকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।গত রোববার দুপুরে তেঁতুলিয়া-ঢাকা মহাসড়কের ভজনপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। সকাল ১০টা থেকে সাড়ে চার ঘণ্টা অবরোধের পর বেলা আড়াইটায় মহাসড়কে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক হয়। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, তেঁতুলিয়া উপজেলার ভজনপুর এলাকার পাথর শ্রমিক ও ব্যবসায়ীরা অবৈধভাবে ভূগর্ভস্থ পাথর উত্তোলনের দাবিতে রোববার সকালে মহাসড়ক অবরোধ করে। পুলিশ যান চলাচল স্বাভাবিক করতে গেলে অবরোধকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ বাধে।

এ সময় অবরোধকারীরা পুলিশের ওপর পাথর নিক্ষেপসহ পুলিশের চারটি গাড়ি ভাঙচুর করে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ টিয়ার শেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে। এদের মধ্যে গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে নেয়ার পথে জুমার উদ্দিন পাথর শ্রমিক মারা যান। নিহত জুমার উদ্দিনের বাড়ি ভজনপুরের গনাগছ গ্রামে। আহতদের পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতাল, তেঁতুলিয়া উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রসহ বিভিন্ন স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে। পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক ডা. সিরাজ উদ্দৌলা পলিন বলেন, নিহত জুমার উদ্দিনকে হাসপাতালে আনার পর তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে ছোট ছোট অসংখ্য ক্ষত চিহ্ন দেখা যায়। এসব ক্ষত থেকে রক্তক্ষরণ হচ্ছিল। তবে পিঠের দিকে ক্ষত চিহ্ন বেশি ছিল। চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। এছাড়া আহত অবস্থায় পুলিশ ও র‌্যাব সদস্যসহ ২০ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

৩ জনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। বর্তমানে ৪ পুলিশ সদস্যসহ ৮ জন হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। তিন র‌্যাব সদস্যসহ বাকি কয়েকজনকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। তেঁতুলিয়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ জহুরুল ইসলাম জানান, প্রশাসনের পুর্ব নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কোনো রকম অবগতি ছাড়াই পাথর ব্যবসায়ী ও শ্রমিকরা রোববার সকালে মহাসড়ক অবরোধ করে। এ সময় পুলিশ বাধা দিলে আন্দোলনকারীরা ক্ষিপ্ত হয়ে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে। এ ঘটনায় পুলিশও আত্মরক্ষার্থে টিয়ার শেলসহ শটগানের ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে আন্দোলনকারীদের ছত্রভঙ্গ করে। কিন্তু আন্দোলনকারীরা সাময়িকভাবে ছত্রভঙ্গ হলেও কিছুক্ষণ পরে একত্রিত হয়ে পুনরায় পুলিশের ওপর হামলাসহ পুলিশের ৩টি গাড়ি ভাঙচুর করে। এ ঘটনায় পুলিশের ওপর আক্রমণ ও তাদের ইট-পাটকেলের আঘাতে এক শ্রমিক নিহত হওয়ার ঘটনায় অজ্ঞাত ব্যক্তিদের আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ইউসুফ আলী বলেন, শ্রমিকরা অবৈধভাবে পাথর উত্তোলনের অন্যায় দাবিতে সড়ক অবরোধ করলে পুলিশ তাদের বাঁধা দেয়। এক পর্যায়ে শ্রমিকরা পুলিশের ওপর ইটপাটকেল ও পাথর ছুঁড়ে। তারা আমাদের গাড়িও ভাঙচুর করে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ কয়েক রাউন্ড টিয়ার শেল ছুঁড়ে। বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


More News Of This Category